সোফিয়া হায়াত - ছবি:ইন্টারনেট

পর্নকাণ্ডে মুখ খুললেন সোফিয়া

ডেস্ক : বলিউডে অনেক ছোট অভিনেত্রী-অভিনেতাদের প্রতারণার জালে ফাঁসানো হয়। তাঁদের অসহায়তার সুযোগ নিয়ে পর্ন বা যৌন উদ্দীপক ছবিতে কাজ করানো হয়। এমন ঘটনা নাকি যত্রতত্র। এর আগে এই তথ্য দিয়েছিলেন অভিনেত্রী শ্রুতি গেরাও। বলিউড সম্পর্কে একই ধরনের মন্তব্য করলেন মডেল-অভিনেত্রী সোফিয়া হায়াত।

মঙ্গলবার রাজের জেল হেফাজত হওয়ার পর পর্ন-কাণ্ড নিয়ে মুখ খুললেন সোফিয়া। তাঁর সহকর্মীদের সতর্ক করে দিলেন ‘বিগ বস’-এর প্রাক্তন প্রতিযোগী। সোফিয়া বললেন, ‘‘এক বার এক কাস্টিং এজেন্ট অডিশন নেওয়ার সময়ে আমায় ঘনিষ্ঠ দৃশ্যের মহড়া দিতে বলেছিল। পরিচালকের জন্য নাকি করে দেখাতে হবে আমায়। তবেই তিনি বুঝতে পারবেন, আমি সেই দৃশ্যে অভিনয় করতে পারব কিনা।’’ সোফিয়ার বক্তব্য, সাধারণত এ ভাবে অডিশন নেওয়া হয় না। যেখানে এন প্রস্তাব দেওয়া হয়, বুঝতে হবে, কোথাও গন্ডগোল রয়েছে। অস্বাভাবিকত্ব টের পেয়েই তিনি সেই কাজে রাজি হননি।

সোফিয়া এর পরে দু’বার ঘনিষ্ট দৃশ্যে অভিনয় করেছেন। জানালেন, কোথাও তাঁকে সেটে যাওয়ার আগে মহড়া দিতে বলা হয়নি। মহড়া দিতে বলা মানেই পর্ন বা যৌন উদ্দীপক ছবিতে কাজ করানোর ফাঁদ পাতা হয়েছে। তাই তাঁর বার্তা, ‘‘খুব ভেবেচিন্তে সিদ্ধান্ত নিতে হবে অভিনেতা অভিনেত্রীদের।’’ প্রতারণা করে পর্ন ছবিতে অভিনয় করানোকে তিনি ধর্ষণের সঙ্গে তুলনা করে বললেন, ‘‘আশা করব, এই মামলাকে আদালত ততটাই গুরুত্ব দেবে, যতটা ধর্ষণের মামলায় দেওয়া হয়।’’

সোফিয়া জানালেন, মূলত ব্যবসায়ীরাই আরও বেশি টাকার লোভে এই ধরনের কাজ শুরু করেন। চলচ্চিত্র জগতের কম বয়সি অভিনেত্রীদের অসহায়তার সুযোগ নিয়ে তাঁরা এই ব্যবসা চালান।
সূত্র : আনন্দবাজার পত্রিকা।

আরো খবর ➔
সমঝোতার সময় ফুরিয়ে আসছে