সার্চ ইঞ্জিন গুগল

গুগলকে ৫০০ মিলিয়ন ইউরো জরিমানা

ডেস্ক : সার্চ ইঞ্জিন গুগলকে ৫০ কোটি ইউরো জরিমানা করেছে ফ্রান্স কর্তৃপক্ষ। সংবাদ প্রকাশক ও সংবাদ সংস্থার কনটেন্ট ব্যবহারের জন্য তাদের অর্থ দেওয়ার বিষয়ে সমঝোতায় পৌঁছাতে ব্যর্থ হওয়ায় এ জরিমানা করা হয়েছে। বর্তমান বিনিময় মূল্যে বাংলাদেশি মুদ্রায় এই জরিমানার পরিমাণ প্রায় পাঁচ হাজার কোটি টাকা।

প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠানগুলোর সঙ্গে সংবাদ প্রকাশকারী সংস্থার কপিরাইট নিয়ে বিশ্বজুড়ে চলমান বিরোধের সর্বশেষ বহিঃপ্রকাশ ঘটেছে এই জরিমানার মধ্য দিয়ে।

মঙ্গলবার বিবিসির এক প্রতিবেদনে বলা হয়, ফ্রান্সের কম্পিটিশন অথরিটি গুগলকে এই জরিমানা করেছে। এই কর্তৃপক্ষ গত বছর সার্চ রেজাল্টে আর্টিকেলের সারসংক্ষেপ দেখানো নিয়ে সংবাদমাধ্যমগুলোর সঙ্গে সমঝোতায় পৌঁছাতে গুগলকে নির্দেশ দিয়েছিল। সেই নির্দেশনা পালনে ব্যর্থতার জন্য এই জরিমানা করা হয়েছে।
তবে গুগল কর্তৃপক্ষ বিবিসিকে বলেছে, এই সিদ্ধান্তের মধ্য দিয়ে একটি সমঝোতা চুক্তিতে পৌঁছাতে তাদের প্রচেষ্টাকে উপেক্ষা করা হয়েছে।

২০১৯ সালে ইউরোপীয় ইউনিয়নের প্রথম দেশ হিসেবে ডিজিটাল কপিরাইট নির্দেশনাকে আইনে পরিণত করে ফ্রান্স। আইনে কথিত ‘নেইবরিং রাইটস’ রাখা হয়েছে, যার আওতায় গুগলকে সংবাদ প্রকাশক ও সংবাদ সংস্থার কনটেন্ট ব্যবহারের জন্য অর্থ দিতে হবে।
বিজ্ঞাপন

সার্চ ইঞ্জিন গুগল

এরপর গুগল ঘোষণা দেয়, প্রকাশকেরা তাদের কনটেন্ট বিনা মূল্যে দেখাতে দিতে রাজি না হওয়া পর্যন্ত ফ্রান্সে সার্চ ও নিউজে ইউরোপীয় ইউনিয়নের সংবাদ প্রকাশকদের কনটেন্ট দেখাবে না তারা। গুগলের এই ঘোষণাকে বাজারে তাদের যে প্রভাব রয়েছে, তার অপব্যবহার হিসেবে আখ্যায়িত করে সংবাদ সংস্থাগুলো। এরপর সংবাদ প্রকাশকদের প্রতিনিধিত্বকারী দুটি সংস্থা ও এজেন্সি ফ্রান্স-প্রেস (এএফপি) ফ্রান্সের কম্পিটিশন অথরিটির কাছে অভিযোগ করে। তারই ধারাবাহিকতায় এখন গুগলকে জরিমানা করা হয়েছে।

এ বিষয়ে গুগল কর্তৃপক্ষ বিবিসিকে বলেছে, ‘এই সিদ্ধান্তে আমরা খুবই মর্মাহত। পুরো প্রক্রিয়ায় আমরা অত্যন্ত বিশ্বস্ততার সঙ্গে এগোচ্ছিলাম।’ প্রতিষ্ঠানটি বলছে, তারাই একমাত্র কোম্পানি যারা কথিত‘নেইবরিং রাইটস’-এর আওতায় সমঝোতায় পৌঁছানোর ঘোষণা দিয়েছে।

টেক জায়ান্টটি বলেছে, বার্তা সংস্থা এএফপির সঙ্গে তাদের চুক্তি প্রায় চূড়ান্ত পর্যায়ে পৌঁছেছে। এর মধ্যে গ্লোবাল লাইসেন্সিং চুক্তি এবং সংবাদ সংস্থাগুলোকে অর্থ প্রদানের বিষয়ও রয়েছে।

কম্পিটিশন অথরিটির নতুন আদেশ অনুযায়ী, সংবাদ ব্যবহারের জন্য এসব প্রতিষ্ঠানকে কীভাবে ক্ষতিপূরণ দেওয়া হবে, সেই বিষয়ে আগামী দুই মাসের মধ্যে গুগলকে নতুন প্রস্তাব নিয়ে আসতে হবে। তাতেও ব্যর্থ হলে গুগলকে প্রতিদিন অতিরিক্ত ৯ লাখ ইউরো জরিমানা গুনতে হবে।

কম্পিটিশন অথরিটির অন্যতম সদস্য ইসাবেল সিলভা এক বিবৃতিতে বলেন, কর্তৃপক্ষ যখন কোনো সংস্থার ওপর বাধ্যবাধকতা আরোপ করে, তখন অবশ্যই এটা তাদের মেনে চলা উচিত। এ ক্ষেত্রে তা না করাটা ছিল খুবই দুর্ভাগ্যজনক।
সূত্র : বিবিসি

আরো খবর ➔
আফগানিস্তানে দুই শতাধিক তালেবান নিহত